পুলিশ

কলেজ ছাত্রীর উপর শ্লীলতাহানির অভিযোগ

সুরজ প্রসাদ,

কলেজ ছাত্রীকে শীলতাহানি করার অভিযোগ উঠলো এক প্রফেসারের বিরুদ্ধে। চিকিৎসা করার অছিলায় নির্যাতন চালিয়েছে প্রফেসার বলে অভিযোগ। এই বিষয়ে বর্ধমান সদর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে নির্যাতিত ছাত্রী টি। পুলিশ অভিযুক্ত প্রফেসার বিশ্বনাথ সাহা কে আটক করেছে। বিশ্বনাথ বাবু রাজ কলেজের ইংরেজি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান বলে জানাগেছে। একজন শিক্ষক এই রকম ঘটনা ঘটিয়েছে তা নিয়ে নিন্দার ঝড় উঠেছে বর্ধমান শহরের টাউনহল পাড়া এলাকায়। অন্যদিকে শহরের ইন্দ্রকানন এলাকার বাসিন্দা প্রফেসার বিশ্বনাথ সাহা জানিয়েছেন, ছাত্রীটি ও তার পরিবার তাঁকে উদ্দেশ্য প্রণোদিত ভাবে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে। ঐ পরিবারের বিরুদ্ধে তিনি বর্ধমান লিখিত অভিযোগ করেছেন। পুলিশ দুই পক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে দুজন করে চার জন কে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠায়।

ছাত্রীটি জানিয়েছে, সে রাজ কলেজে প্রথম বর্ষের ছাত্রী। ইংরেজি বিষয়ে একটু দক্ষতা থাকার জন্য বিশ্বনাথ বাবু নজরে চলে আসে সে। তিনি নিজে থেকে ফোন নম্বর নিয়ে নানান অছিলায় ছাত্রীটির সাথে যোগাযোগ রাখতে থাকেন। ছাত্রী টি আরো বলে, স্যার একদিন আমার পরিবারের সাথে পরিচয় করতে বাড়িতে আসতে ইচ্ছা প্রকাশ করে। সেই মতো তিনি সকালের দিকে বাড়িতে আসেন ও বেশ কিছুক্ষন সময় কাটান। তারই মধ্যে ছাত্রীর হাই ব্লাডপ্রেশার কথা জানতে পেরে চিকিৎসার অছিলায় ছাত্রীটির শরীরের বিভিন্ন জায়গা হাত দেন। এতে হতবম্ব হয়ে যায় ছাত্রীটি।তারপর প্রফেসার চলে গেলে পরিবারের সবাইকে বিষয়টি খুলে বলে, এবং প্রতিবেশীদের সাহায্যে বর্ধমান থানায় অভিযোগ জানাতে হাজির হয়।

 1,043 12,89,834

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *