বর্ধমান জেলা

রাজ্যে আইন থাকলে সিদ্দিকুল্লাহ গ্রেপ্তার হতেন ; রাহুল

সুরজ প্রসাদ,

কৃষক সুরক্ষা অভিযানে অংশ নিতে পূর্ব বর্ধমানের আমরা গ্রামে সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরীকে একহাত নিলেন বিজেপি নেতা রাহুল সিনহা।তিনি বলেন রাজ্যে ঠিকঠাক সরকার থাকলে উনি গ্রেপ্তার হতেন।এদিন কলকাতা থেকে বর্ধমানে আসেন রাহুল সিনহা। আজ তার কর্মসূচি ছিল আমরা গ্রামে। আমরা গ্রামে জাতীয় সড়কের কাছ থেকে তার পদযাত্রা শুরু হয়। গ্রামের ভিতরে এসে কয়েকটি কৃষক পরিবারে যান তিনি। তাদের কাছ থেকে চাল আর আলু নিয়ে ঝোলায় ভরেন। শিবপ্রসাদ মাজি; শ্যামলী মাঝি; কৃষ্ণা পাকরে ; পদ্মা বাগ ; শ্যামলী দাস ও প্রিয়াঙ্কা নায়কেরা জানান রাহুলজি তাদের সমস্যা শুনেছেন।কেন্দ্রের কৃষি আইনে চাষিরা লাভবান হবেন জানিয়েছেন। এরপর রাহুল গ্রামেরই পরেশচন্দ্র দাসের বাড়িতে মধ্যাহ্নভোজ সারেন।পাত পেড়ে কলাপাতায় পঞ্চব্যঞ্জন সাজিয়ে তাদের খেতে দেওয়া হয়। সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রাহুল সিনহা তীব্র আক্রমণ করেন সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরীকে। তিনি বলেন; উনি কৃষকের জন্য কী করেছেন।তৃণমূলের বাজার খারাপ।তাই ওকে ময়দানে নামিয়েছে।ভ্যাকসিন একটা জরুরি বিষয়। সবার প্রয়োজন। তার গাড়ি আটকে উনি ক্ষমা চাননি কেনো? রাজ্যে সরকার ঠিকভাবে চললে উনি গ্রেপ্তার হতেন। এছাড়াও রাহুল বলেন কেন্দ্রের কৃষি আইনে স্থগিতাদেশ একটা সাময়িক ব্যাপার। দিল্লিতে যারা আন্দোলন করছেন তারা কৃষকের নামে দালালদের আন্দোলন করেছেন।বিজেপি নেতারা কৃষকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাতে ও কৃষি আইনের ভাল দিক তুলে ধরে গ্রামে গ্রামে যাচ্ছেন। এই চাল সংগ্রহের কর্মসূচি চলছে। অমিত শাহ যখন রাজ্যে আসবেন তখন এই চালের খিচুড়ি প্রসাদ সবাই গ্রহণ করবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *