একসপ্তাহের সবজি বিলি রায়ান গ্রামে

প্রশাসন

জ্যোতিপ্রকাশ মুখার্জি


লকডাউনের জন্য সমাজের একটা বড় অংশ চরম আর্থিক সমস্যায় পড়েছে।রেশনে বিনামূল্যে চাল বা আটা দেওয়া হলেও করোনা রোগ প্রতিরোধী সব্জী কেনার মত অর্থ সাধারণ মানুষের হাতে নাই। অথচ বিশেষজ্ঞদের মতে এই সব্জী খুবই জরুরি।এবার এই সমস্যার সমাধানে এগিয়ে এল সারাবাংলা ওষুধ কোম্পানির ম্যানেজার সংগঠন।
পূর্ব বর্ধমান জেলার আই.এন.টি.টি.ইউ.সি এর সহযোগিতায় সংশ্লিষ্ট সংগঠনের উদ্যোগে ৯ ই মে রায়ান গ্রাম পঞ্চায়েতের বিভিন্ন গ্রামের প্রায় ৮০০ টি পরিবারের হাতে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এক সপ্তাহের মত পটল, কুমড়ো, ঢ্যাঁড়স, কুন্দরী, বরবটি,লঙ্কা, টমেটো, উচ্ছের মতো রোগপ্রতিরোধ বৃদ্ধিকারী তাজা সবজি তুলে দেওয়া হয় । উপস্থিত ছিলেন পূর্ব বর্ধমান জেলার আই.এন.টি.টি.টিউ.সি তথা ম্যানেজার সংঘটনের সভাপতি ইফতিকার আহমেদ, সংঘটনের পূর্ব বর্ধমান জেলা ইউনিটের সম্পাদক অমিতাভ বন্দ্যোপাধ্যায় সহ সংঘটনের কিছু সদস্য।
ইফতিকার আহমেদ বলেন করোনার মত মারণ ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে যেভাবে এই সংগঠন এগিয়ে এসেছে তাতে সংগঠনের সভাপতি হিসেবে তিনি গর্বিত।
অন্যদিকে অমিতাভ বাবু বলেন – ‘সবুজের হাট’ এর মাধ্যমে আমরা আমাদের সীমিত সামর্থ্যের মধ্যে দিয়ে সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করেছি। সবারই মিলিত প্রচেষ্টায় করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আমরা সফল হবই।

Leave a Reply

Your email address will not be published.