ডাক্তার আমি – তুহিনা সুলতানা

সাহিত্য বার্তা

ডাক্তার আমি
তুহিনা সুলতানা

আমি ডাক্তার শরীরে ক্ষত চিহ্ন নিয়ে
হসপিটালের বেডে শুয়ে থাকা এক ডাক্তার।

তখন খুব ছোট মায়ের আঙুল ধরে পেরিয়ে যাচ্ছিলাম রাস্তা

লরির ধাক্কায় রক্তস্নাত মা নাড়াচ্ছিলেন হাত পা,
চিকিৎসা শুরু হওয়ার আগেই- নিলেন তিনি বিদায়।
তখন সেই শিশুমনের আমি হয়েছিলাম বড় অসহায়,
কোথাও না কোথাও বড় হওয়ার সাথে সাথে
অজান্তেই নিয়ে বসেছিলাম অনেক সংকল্প,
মানুষের বিপদে দ্রুত পাশে দাঁড়ানোর সংকল্প।

মধ্যবিত্ত স্কুল টিচারের মেয়ে ছিলাম আমি
সাধ্যের বাইরে গিয়ে ও আমার ইচ্ছের মর্যাদা দিতে
তিনি বানিয়েছেন আমাকে মানুষ সেবার কারিগর।

আমি সময়কে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে দিনরাত এক করে ব্রতী হই প্রতিনিয়ত মানুষের সেবায়।
অন্যায়ের প্রতিবাদে, সুস্থ পরিবেশের স্বার্থে
বন্ধুদের সাথে বসি ও মাঝে মাঝে ধরনায়।

সেখানেও আমার হাতে থাকে পেন আর প্যাড
আমার সংকল্পে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ আমি।
রোগীর সেবা ই আমার পরম ধর্ম।
অনিচ্ছাসত্ত্বেও প্রতিদিনই আমাকে দেখতে হয়
আত্মীয় বিয়োগের চরম যন্ত্রনা।
গলার কাছে দলা পাকানো কষ্টটাকে
গিলে নিতে চেষ্টা করি…
পারিনা কাউকেই বোঝাতে ।
আত্মীয় পরিজন এর ব্যথায় ব্যথিত হয়ে
এই আমাকেই শুতে হয় হসপিটালের বেডে।
আমি ডাক্তার –
হসপিটালের এমার্জেন্সি বেডে শুয়ে থাকা
এক মানব দরদী ডাক্তার।

1 thought on “ডাক্তার আমি – তুহিনা সুলতানা

Leave a Reply

Your email address will not be published.