ঠাকুমার অভিযোগে নাতনির দেহ কবর থেকে তুললো পুলিশ

ভিডিও

সুদিন মন্ডল,ভাতার :- পুলিশের কাছে ঠাকুরমার অভিযোগের ভিত্তিতে ময়না তদন্তের জন্য কবর খুঁড়ে তোলা হলো 5 বছরের শিশু কন্যার মৃতদেহ !ভাতারের মাহাতা গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার ঝারুল গ্রামের ঘটনা! মৃত ওই শিশু কন্যার নাম জেসমিন খাতুন! পুলিশ সূত্রে জানা গেছে প্রায় সাত বছর আগে ভাতারের পলসোনা গ্রামের সেখ শফিকের সাথে বিয়ে হয়েছিল ঝারুল গ্রামের মেয়ে ফাতেমা খাতুন এর !জেসমিন এর জন্মের পর থেকেই স্বামী স্ত্রীর মধ্যে অশান্তি শুরু হয় !প্রায় দেড় বছর আগে তাদের মধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদ হয় !এরপর জেসমিন মায়ের কাছেই থাকতো ! গত মঙ্গলবার 16 ই এপ্রিল বাড়ীর পাশে পুকুরের জলে ডুবে মারা যায় জেসমিন !তার দেহকে কবর দেয়া হয় গ্রামেরই কবরস্থানে! অন্যদিকে পলসোনা নিবাসী জেসমিনের ঠাকুমা আসাই বিবি শেখ ভাতার থানায় অভিযোগ করেছেন তাদেরকে না জানিয়ে তার নাতনির মৃতদেহ কেন সমাধিস্থ করা হলো! তার দাবি তার নাতনিকে স্বাভাবিক মৃত্যু ঘটে নি !তার দাবি কে মান্যতা দিয়ে শুক্রবার স্থানীয় ম্যাজিস্ট্রেট বিডিও সাহেব এর উপস্থিতিতে ভাতার থানার পুলিশ ঝারুল থেকে জেসমিন এর মৃতদেহ কবর থেকে তুলে বর্ধমান মেডিকেল এ ময়না তদন্তের জন্য পাঠায় !এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে !

Leave a Reply

Your email address will not be published.