আত্মহত্যা করা ১০৮ জনের নরমুন্ডু লাগে শ্বশানকালীর সাধনায়

ক্রীড়া সংস্কৃতি

সৃজন শীল,

দুর্গাপূজা ও লক্ষী পূজার পর আসছে আলোর উৎসব দীপাবলি, মঙ্গলবার রাতে অমাবস্যার রাতে দেবী সাধনায় মেতে উঠবেন মা কালী সাধকরাহ। কোথাও আবার নীতি-নিয়ম মেনে তন্ত্র সাধনার মাধ্যমে কোথাও আবার হোম যজ্ঞের মাধ্যমে পূজা হবে। কিন্তু মন্দিরবাজার থানার দক্ষিণ বিষ্ণুপুরের শ্মশান কালী পুজো হবে তান্ত্রিক মতে। সেখানে থাকবে ১০৮ নরমুণ্ডু, যে নরমুন্ডু গুলো কেবলমাত্র যারা আত্মহত্যা করেছে তাদেরই নরমুণ্ড বলে জানা যায়। আর এই নরমুণ্ড দিয়ে রাতভর চলবে দেবী কালীর সাধনা। বছর ৯০ আগে মা কালী চক্রবর্তীর পরিবারের রাত্রে স্বপ্ন দিয়ে জানিয়েছিলেন তার প্রতিষ্ঠিত করার জন্য । ওই চক্র বর্তির বাড়ির সদস্যরা তাই শ্মশানের পাশের জঙ্গল কেটে মা কালীর মন্দির প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। কথিত আছে দেবী স্বপ্নে নির্দেশ দিয়েছিলেন অপঘাতে মৃত্যু ১০৮ টি মৃতদেহের মাথা দিয়ে তার পূজা করতে হবে। সেই পথে আজ ও চলে আসছে চক্রবর্তী বাড়ির সদস্যরা,তারা হন্যে হয়ে অপঘাতে মৃত্যু মুণ্ডুর খোঁজ করতে থাকে, একে একে মিলিয়েও যায় ১০৮ টি মুন্ডু । সেই মুন্ডু গুলো ঝাড়পোঁছ করে মা কালীর পূজার সাধনায় বসতে চলেছে চক্রবর্তী বাড়ির আরেক সদস্য শ্যামল চক্রবর্তী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.