প্রশাসন

রুপনারায়ণপুর শহরে আংশিক লকডাউন শুরু হচ্ছে

রূপনারায়নপুর শহরে রবিবার থেকে আবার আংশিক লকডাউন

কাজল মিত্র

:- দিনের পর দিন যেভাবে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ছে তার ফলে যে কোন মূল্যে করোনাকে রুখতে বদ্ধ পরিকর
সালানপুর ব্লক প্রশাসনসহ পুলিশ প্রশাসন।জেলায় করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় জেলা প্রশাসনকে মুখ্যমন্ত্রী সতর্ক থাকতে নির্দেশ দিয়েছেন। সেই নির্দেশ মেনেই কিভাবে রবিবার সকাল থেকে রূপনারায়নপুর শহরকে করোনা মুক্ত করতে আংশিক লকডাউন কার্যকর করা হবে,তা নিয়ে অনুষ্ঠিত হল এক প্রশাসনিক বৈঠক।তাই আজ করো না ভাইরাসের বৃদ্ধি কমাতে সাধারণ মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে একটি প্রশাসনিক বৈঠক করা হয় রূপনারায়নপুর বাজার কমিটির পক্ষ থেকে। যে বৈঠকে আলোচনা করা হয় যে সমগ্র রাজ্যজুড়ে বিভিন্ন জায়গায় লকডাউন এখনো চলছে আর এই লকডাউন কে ঠিকভাবে পালন করা দরকার।আর রুপনারায়নপুর বাজারে যেভাবে মানুষ মাস্ক ছাড়া অযথা ঘোরাফেরা করছে তাতে করোনা সংক্রমন ছড়ানোর ভয় রয়েছে আর তার জন্যই আজকে রূপনারায়ণপুর বাজার কমিটির পক্ষ থেকে রুপনারায়নপুর নান্দনিক হলে একটি প্রশাসনিক বৈঠক করা হয় সমস্ত দোকানদার দের নিয়ে এদের এই বৈঠকে বিশেষভাবে উপস্থিত ছিলেন সালানপুর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি ফাল্গুনী ঘাসি, জেলা পরিষদের কর্মদক্ষ মোঃ আরমান, সালানপুর থানা অধিকারী পবিত্র কুমার গাঙ্গুলী, রূপনারায়ণপুর ফাঁড়ি ইনচার্জ সিকান্দার আলম, কল্যানেশ্বরী ইনচার্জ অমর নাথ দাস, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি বিদ্যুৎ মিশ্র, সালানপুর ব্লক তৃণমূল এর সাধারণ সম্পাদক ভোলা সিং ও রূপনারায়নপুর পঞ্চায়েত প্রধান রানু রায় সহ রূপনারায়নপুর, দেন্দুয়া, আল্লাডি, নিউমার্কেট, কল্যানেশ্বরী বাজারের সমস্ত দোকানদার। এদিন এই বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে করো না যেভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে লকডাউন কে আরো বাড়ানো দরকার তাই রূপনারায়ণপুর বাজার কমিটির পক্ষ থেকে মোঃ আরমান জানান যে বর্তমানে যেভাবে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে।এতে সালানপুর ব্লকে কোন ভাবেই করোনা আর বাড়তে দেওয়া যাবে না। রুপনারায়নপুর বাজারকে মোটামুটি ভাবে আরও দশ দিনের জন্য আংশিক লকডাউন বাড়াতে হবে ।এই বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে সব দোকান সকাল আটটা থেকে দুটো অবধি খোলা থাকবে
বাকি সময় বন্ধ কেবল মাত্র ওষুধ দোকান ছাড়া। যদি কোন দোকান তার বেশি খোলা থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।কারণ যেভাবে করোনাভাইরাস বৃদ্ধি পাচ্ছে এতে সকলকে সচেতন হওয়া দরকার আর সকল দোকানদারকে মাস বয়সের সাথে সাথে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে জিনিসপত্র কেনা বেচা করতে হবে।এদিন পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি ফাল্গুনী ঘষি জানান এই অঞ্চলের বাসিন্দারা যাতে একান্ত জরুরী কাজ ছাড়া বাইরে না বেরোন, সেই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। মানুষকে মাস্ক ব্যবহার এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে বার বার অনুরোধ করছে প্রশাসন।সালানপুর পঞ্চায়েত সমিতির তরফে দুপুর দুটো থেকে ফের লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।আর এই লকডাউন কার্যকর করতে সালানপুর ব্লক প্রশাসনের তরফে ও সালানপুর থানার পক্ষ থেকে প্রতিনিয়ত এই অভিযান চালু থাকবে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *