ক্রীড়া সংস্কৃতি

মেহতাব – দেবজ্যোতির ‘পথবন্ধু’ নামলো সহযোগিতায়

গোপাল দেবনাথ,

মেহতাব-দেবজ্যোতির ‘পথবন্ধু’ পথে নামলো রাস্তার বন্ধুদের সাহায্যার্থে

করোনাকালে আমরা সকলেই জীবনের নানা রূপ দেখতে পাচ্ছি।নানা স্তরের মানুষ,নানা দেশের মানুষ এক সরলরেখায় মিলে গেছে।বড় দেশ,ছোট দেশ,ধনী বা দরিদ্র ভেদাভেদ উঠে গিয়ে এই কঠিন সময়ে আমরা সবাই শুধুই মানুষ।এই একটাই আমাদের পরিচয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।অনেক কিছু হারিয়ে,আমরা অনেক কিছু ফিরেও পেয়েছি।রাজপ্রাসাদের মানুষ আর পথের মানুষের মাঝের দূরত্বটা অনেকটাই কমে এসেছে।হাতে হাত মিলিয়ে আজ সবাই বন্ধু।পথে নেমে পথ খোঁজার,নতুন মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে বন্ধু হয়ে ওঠার সময় এটা। বিশিষ্ট সঙ্গীত শিল্পী দেবজ্যোতি মিশ্র, চিত্রশিল্পী মেহতাব মিলে তৈরি করলেন “পথবন্ধু”।কি এই পথবন্ধু ? দেবজ্যোতি মিশ্র জানালেন,”গ্রাম- গঞ্জ – মফঃস্বল – শহর জুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে কিভাবে যে মানুষ বাঁচছে! আদো কি বাঁচছে ?
বেড়িয়েছিলাম আমরা….
বহু বহু মানুষ রাস্তায় পড়ে রয়েছে। এতটুকু খাবার নেই, জল নেই।এরা ভিক্ষুক নয়, এরা আসলে মানসিক ভাবে প্রকৃতস্থ নন ।খাবার চাইতে পারে ভিখিরিরা তবে এদের খিদে বোধ হলে চাইতে পারাই ভুলে গিয়েছে।এই প্যান্ডামিক !এই লকডাউনে ! চাইবেই বা কার কাছে ?
চেষ্টা করছি নিজেদের মতো করে ওদের পাশে দাঁড়ানোর। একটা বড় গাড়ি আর খাবার নিয়ে বেড়িয়ে পড়ি,গ্রাম -শহর – মফঃস্বল ….. কুলতলী থেকে পার্ক স্ট্রিট !আমরা সব জায়গাতে যাচ্ছি, এই ধরণের যারা মানুষ রয়েছে, তাদের কাছে খাবার পৌঁছতে।
কেউ উলঙ্গ, দরকার জামাকাপড়,
কারোর হয়নি বহুদিন স্নান, তাদের একটু স্নান করিয়ে জামাকাপড় দেওয়ার চেষ্টা, এই চেষ্টাই করতে পারি !
অনেকে বলেন এখন ঘরে থাকার কথা তোমরা এভাবে রাস্তায় কেন ?
আমরা বলি সবাই যদি ঘরে থাকি তাহলে এই মানুষগুলোর চলবে কি করে ….. আচ্ছা বলুন তো আজ যদি ডাক্তারা, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মীরা বলেন ঘরে থাকবো, তাহলে আমাদের চিকিৎসা হত কিভাবে ?
তাই বেরিয়ে পড়েছি এই সমস্ত মানুষের পাশে যতটুকু দাঁড়ানো যায় এই ভেবেই।পথবন্ধুর সাথে যারা দাঁড়াতে চান,আমাদের সাথে যোগাযোগ করতে পারেন।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *