কাজল মিত্র : সালানপুর থানার রূপনারায়নপুর এলাকায় দুইবছর আগের খুনের ঘটনায় ধৃত এক জনকে নিয়ে গতকাল ঘটনার পুনর্গঠন করল রূপনারায়নপুর পুলিশ ৷ একইসঙ্গে রূপনারায়নপুর বাজার রোডের উপর বসুনিকেতন বাড়িতে এক বৃদ্ধাকে শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছিল আর তারই পুনর্গঠনের তদন্তে রূপনারায়নপুর পুলিশ বুধবার দুপুর সাড়ে বারোটা নাগাদ খুনে অভিযুক্ত করন দাসকে নিয়ে ওই মৃতা বৃদ্ধার বাড়িতে যায় পুলিশ।সেখানে ওই বৃদ্ধাকে কিভাবে খুন করাহয়েছিল তার সমস্ত টি পুনর্গঠনের মাধ্যমে ভিডিও গ্রাফি হয় ।
উল্লেখ্য যে রূপনারায়নপুর বাজারে রোডের বসুনিকেতন নামক একটি একতলা বাড়িতে এক বৃদ্ধা শেফালী রায় একাই থাকতেন। 2020 সালের 20 মার্চ ওই বাড়ির ভেতরে থেকে বৃদ্ধাকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায় ।এরপরেই তৎকালীন রূপনারায়নপুর ফাঁড়ির চার্জে থাকা সিকনদর আলম মৃতের কেসের দায়িত শোভন সাহা কে দেওয়া হয় ।কিন্তু কিছুদিন তদন্ত চলার পর রূপনারায়নপুর ফাঁড়ির কেসের দায়িত্বে থাকা শোভন সাহা কে অন্য থানায় স্থানান্তরিত করা হলে সেই কেসের ভার বর্তমান রূপনারায়নপুর ফাঁড়ির ইনচার্জ রাহুল মন্ডলের কাছে আসে যারফলে রূপনারায়নপুর ফাঁড়ির ইনচার্জ রাহুলদেব মন্ডল ও রুপনারায়নপুর ফাঁড়ির সমস্ত পুলিশ কর্মীদের সহায়তায় বিভিন্ন দিক খতিয়ে দেখে জানতে পারেন ঐবাড়িয়ে কিছু কর্মচারী বৃদ্ধার সেবার কাজে ছিল ।সেই কর্মরত কর্মচারীদের ডেকে পাঠান যারা ওই মৃতা বৃদ্ধার বাড়িতে পরিচারিকার কাজ করত ।সকলে এলেও করন দাস নামে একজন প্রথম থেকেই এলাকা ছাড়া ছিল গোপনসূত্রে খবর পেয়ে তাকে তার বাড়ি থেকে আটক করা হয় এবং জিজ্ঞাসা বাদ করা হলে অপরাধী নিজের দোষ স্বীকার করে এবং তাকে আদালতে তোলা হলে দশ দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেন এরপরেই অপরাধীকে নিয়ে ওই স্থানেই ঘটনার পুনর্গঠন করে পুলিশ ৷
পুনর্গঠনের সময় করন দাস
তদন্তকারীদের জানায় ওই বৃদ্ধাকে রেগে গিয়ে শ্বাস রোধ করে খুন করা হয়েছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *