ওয়েসিস ফাউন্ডেশনের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান


  • সম্প্রতি অন্নপূর্ণা থিয়েটার হল পুরীতে ওয়েসিস ফাউন্ডেশন একটি বিশাল সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিল। সেই অনুষ্ঠানে অনেক গুরুত্বপূর্ণ শিল্পী এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।
    অনুষ্ঠানের প্রথম অংশে ভারতের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অনেক নৃত্য প্রতিযোগীরা অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় অংশে পণ্ডিত শ্রী গৌরীশঙ্কর নোনা, গুরু রাজীব ভট্টাচার্য, গুরু সন্দীপ ব্যানার্জী, পণ্ডিত শ্রী উপেন্দ্র কুমার শর্মা এবং পন্ডিত শ্রী রামকৃষ্ণ জি প্রদীপ জ্বালিয়ে অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা করেন। অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ছিলেন গুরু রতিকান্ত মহাপাত্র এবং এই অনুষ্ঠানের ফেস্টিভ্যাল ডিরেক্টর ছিলেন পণ্ডিত কে শঙ্করা নারায়ণন তিরুভালি। এই উৎসবে গুরু শ্রী রাজীব ভট্টাচার্য এবং তাঁর দল সৃজন ছন্দ অসাধারণ নৃত্য পরিবেশন করেন। পণ্ডিত জ্ঞান প্রকাশ ঘোষ বাবুর যোগ্য শিষ্য – বেতার শিল্পী পন্ডিত শ্রী প্রবীর ব্যানার্জী তার অসামান্য দক্ষতার সঙ্গে সঙ্গীত পরিবেশন করেন। গুরু শ্রীমতি অঞ্জনা ব্যানার্জী ও গুরু শ্রীমতি অনুরাধা রায় অপূর্ব নৃত্য পরিবেশন করেন। এছাড়া আরও অনেক গুণী ও বিশিষ্ট শিল্পী গন এই উৎসবে তাদের কলা পরিবেশন করেন।
    “ওয়েসিস ফাউন্ডেশন” এর সেক্রেটারি শ্রী অরিন্দম বোস মহাশয় উপস্থিত সকল গুণী শিল্পী ও অতিথিদের উত্তরীয় ও স্মারক প্রদান করে সংবর্ধিত করেন। এর পর যোগ্য প্রার্থীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের সূচনা করেন ওয়েসিস ফাউন্ডেশনের বিশিষ্টজনরা। পুরো অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনা করেন গুরু সুচিস্মিতা আদিত্য সরকার। সব শেষে সংগঠনের সেক্রেটারি শ্রী অরিন্দম বোস মহাশয় ঘোষণা করেন যে এই প্রতিযোগিতার সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপ্ত প্রতিযোগি, তাদের আন্তর্জাতিক উৎসবে বিনামূল্যে যোগদান করবেন, এবং উপযুক্ত প্রতিযোগি এক বছরের জন্য ওয়েসিস ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে স্কলারশিপ পাবেন। এই ধরনের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান সাম্প্রতিক অতীতে বিরল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *